নগরীতে শিশুদের দিয়ে ভিক্ষাবৃত্তি প্রশাসন নির্বিকার,অতীষ্ঠ পথচারীরা

প্রকাশিত: ৮:১৪ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১২, ২০১৯

নগরীতে শিশুদের দিয়ে ভিক্ষাবৃত্তি প্রশাসন নির্বিকার,অতীষ্ঠ পথচারীরা

রেজওয়ান আহমদ :: সিলেট নগরীতে শিশুদের দিয়ে ভিক্ষাবৃত্তি বেড়েই চলেছে। অর্থলোভী অভিভাবকরা এইসব শিশুদের দিয়ে ভিক্ষা করিয়ে যাচ্ছে। নগরীর বিভিন্ন মার্কেটের সামনে ছোট ছোট শিশুদের ঘুম পাড়িয়ে রেখে যায় অভিভাবকরা। ছোট ছোট শিশুদের রাস্তায় পড়ে থাকতে দেখে দু’ চার টাকা দিয়ে যাচ্ছেন পথচারীরা। এমনও শিশু আছে ভিক্ষার জন্য নগরীতে ঘুরতে থাকে সারাদিন। প্রায় সময় দেখা যায় ভিক্ষা পাওয়ার আশায় শিশুরা গাড়ির পিছনে পিছনে দৌড়াতে থাকে। এতে করে অনেক সময় মারাত্মক দুর্ঘটনার শিকার হচ্ছে তারা। এইসব শিশুরা সকাল থেকে রাত পর্যন্ত পথচারীদের কাছে হাত পেতে ভিক্ষা চাইছে। অনেক সময় ভিক্ষার ভাগ-বাটোয়ারা নিয়ে মারামারি করে আহত হচ্ছে তারা। অন্যদিকে ভিক্ষার টাকা দিয়ে ডেন্ডি নামক এক ধরনের নেশায় জড়িয়ে পড়ছে তারা। যে বয়সে খেলাধুলা ও স্কুলে যাওয়ার কথা সেই বয়সেই অর্থলোভী অভিভাবকের কারণে তারা ভিক্ষাবৃত্তিতে জড়িয়ে পড়ছে। অথচ শিশুদের দিয়ে যে কোনো কাজ করানো আইনত দন্ডনীয় অপরাধ। অর্থলোভী অভিভাবকরা শিশুদের দিয়ে সহজেই প্রতিদিন টাকা কামিয়ে নিচ্ছে। এমনও অভিভাবক আছে, ছোট শিশুকে ঘুমের ঔষধ খাইয়ে রাস্তার পাশে না হয় মার্কেটের সামনে ঘুম পাড়িয়ে চলে যায়। পাশে আরেকটি শিশু বসে থাকে টাকা নেওয়ার জন্য। শিশু ভিক্ষুকদের কারণে অতীষ্ঠ হয়ে উঠেছে পথচারীরা। ভিক্ষার জন্য পথচারীদের কাপড় ধরে টানাটানি করতে থাকে শিশু ভিক্ষুকরা।
ঢাকা শহরে ভিক্ষাবৃত্তি বন্ধের জন্য প্রশাসনের পক্ষ থেকে প্রায় সময় অভিযান চালানো হয়। কিন্তু সিলেট নগরীতে প্রশাসনের পক্ষ থেকে এ ধরনের কোনো পদক্ষেপ নেওয়া হচ্ছে না। যার কারণে প্রতিদিনই বাড়ছে শিশুদের দিয়ে ভিক্ষাবৃত্তির সংখ্যা।
বর্তমান পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন ও সিলেট সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী বিভিন্ন অনুষ্ঠানে ভিক্ষাবৃত্তি বন্ধের জন্য বিভিন্ন পদক্ষেপের কথা বলে যাচ্ছেন। কিন্তু আজ পর্যন্ত ভিক্ষাবৃত্তি বন্ধের জন্য কোনো পদক্ষেপ নেওয়া হয়নি। যার কারণে সহজ উপায়ে ভিক্ষা করে টাকা উপার্জন করার সংখ্যা নগরীতে বেড়েই চলেছে।

পথচারীরা অভিযোগ করে জানান, অর্থলোভী কিছু অভিভাবক সহজ উপায়ে টাকা রুজির জন্য এসব ছোট ছোট শিশুদের দিয়ে ভিক্ষা করিয়ে যাচ্ছেন। আমরা রাস্তা দিয়ে চলতে গিয়ে এসব শিশুদের কারণে হাঁটাচলা করতে পারছি না। তারা ভিক্ষার জন্য হাত ধরে অথবা কাপড় ধরে টানাটানি করতে থাকে। এমন শিশু আছে তারা পকেট চুরি এমনকি মহিলাদের ভ্যানেটি ব্যাগ থেকে টাকা ও মোবাইল চুরি করছে। যারা এইসব শিশুদের দিয়ে ভিক্ষাবৃত্তি করাচ্ছে তাদের আইনের মাধ্যমে গ্রেফতার করে শাস্তির জন্য প্রশাসনের প্রতি আহবান জানান।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

Send this to a friend