দেশে ঢুকেছে ২৫৭ ট্রাক ভারতীয় পেঁয়াজ

প্রকাশিত: ৬:৪৪ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ৫, ২০১৯

দেশে ঢুকেছে ২৫৭ ট্রাক ভারতীয় পেঁয়াজ

সিলেটপ্রেস ডেস্ক :: অবশেষে ছুটির দিন শুক্রবার বিশেষ ব্যবস্থায় হিলি ও সোনামসজিদ স্থলবন্দর দিয়ে দেশে ঢুকেছে ২৫৭ ট্রাক ভারতীয় পেঁয়াজ। এর আগে বৃহস্পতিবার রাতে মিয়ানমার থেকে ২০ ট্রাক পেঁয়াজ ঢুকেছে চট্টগ্রামের খাতুনগঞ্জে। এছাড়া মিসরের পেঁয়াজের চালানও ঢাকায় পৌঁছেছে।

হিলি স্থলবন্দরের ওপারে টানা ৫ দিন আটকে থাকার পর শুক্রবার দেশে ঢোকে পেঁয়াজবাহী ৫৭টি ট্রাক। এসব ট্রাকে ভারত থেকে ৯৪৬ টন পেঁয়াজ এলেও বন্দরে আটকে থাকায় বেশিরভাগ পেঁয়াজ নষ্ট হয়েছে বলে জানিয়েছেন হিলি বন্দরের আমদানিকারকরা।

অন্যদিকে ভারতের মহদিপুরে ৭ দিন আটকে থাকার পর এদিন পেঁয়াজবাহী ২০০টি ট্রাক সোনামসজিদ স্থলবন্দরে প্রবেশ করেছে।

হিলি স্থলবন্দর সূত্রে জানা যায়, ২৬ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত ভারত থেকে প্রায় ১০ হাজার টন পেঁয়াজ আমদানির জন্য এলসি (লেটার অব ক্রেডিট) খোলেন হিলি স্থলবন্দরের পেঁয়াজ আমদানিকারকরা। কিন্তু রবিবার বিকেলে হঠাৎ করে এক নোটিফিকেশনের মাধ্যমে ভারতীয় কাস্টমস কর্তৃপক্ষসহ রপ্তানিকারকদের বাংলাদেশে পেঁয়াজ রপ্তানি না করতে আদেশ জারি করে ভারত সরকার। হঠাৎ পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ হয়ে যাওয়ায় বাংলাদেশি আমদানিকারকদের এলসি করা পেঁয়াজবাহী ৭০টি ট্রাক বাংলাদেশে প্রবেশের মুখে ভারতের হিলি স্থলবন্দরে আটকা পড়ে। অবশেষে ছুটির দিন দুপুর সাড়ে ১২টার পর থেকে পেঁয়াজ বোঝাই ট্রাকগুলো বন্দরে প্রবেশ করতে শুরু করে।

বন্দর কর্তৃপক্ষ জানান, এদিন সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত আটকে পড়া ৭০টি ট্রাকের মধ্যে ৫৭টি ট্রাকে ৯৪৬ টন পেঁয়াজ হিলি স্থলবন্দর দিয়ে দেশে এসেছে।

আমদানিকারক বাবলুর রহমান বলেন, ৫ দিন আটকে থাকায় গরমে বেশিরভাগ পোঁয়াজ নষ্ট হয়ে গেছে। গাড়ি বেয়ে পেঁয়াজ পচা পানি ঝরছে। গুদামে নিয়ে বাছাই করে তারপর এসব পেঁয়াজ বিক্রি করা হবে বলে জানান তিনি।

এদিকে সোনামসজিদ স্থলবন্দরের দায়িতরত্ব কাস্টমস পরিদর্শক বুলবুল জানিয়েছেন, ভারতের মহদিপুর স্থলবন্দরে ৭ দিন আটকে থাকা পেঁয়াজ ভর্তি ২০০ ট্রাক শুক্রবার দুপুর সাড়ে ১২টা থেকে সোনামসজিদ স্থলবন্দরে প্রবেশ করতে শুরু করে।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

Send this to a friend